যদি আপনি জীবনে অনেক হতাশ হয়ে আসেন একা হয়ে গেছেন সবসময় চিন্তা করেন তাহলে

 



যদি আপনি জীবনে অনেক হতাশ হয়ে আসেন একা হয়ে গেছেন সবসময় চিন্তা করেন তাহলে আজকের গল্পে টি একটু মনোযোগ দিয়ে শুনুন আপনার মন শান্ত হয়ে যাবে আপনার সম্পূর্ণ জীবনটাই বদলে যাবে তো চলুন শুরু করা যাক সময় কখনো বৃদ্ধ হয় না বরং সময় প্রতিদিন আরও তাজা হতে থাকে সময় যদি বৃদ্ধ হতো তাহলে কবে মারা যেত সময় কখনো বৃদ্ধ হয় না কিন্তু হ্যাঁ এটা অন্যদেরকে বৃদ্ধ করে দেয় সময় অনেক মূল্যবান তাই এটাকে ফালতু কাজে নষ্ট করবেন না কারণ যে সময় একবার আপনার হাত থেকে বেরিয়ে যাবে সে আর কখনো ফিরে আসবে না তাই সময়কে সম্মান করুন সময় আপনাকে সম্মানীয় করে দেবে আপনাকে জিজ্ঞেস করলে বলেন সময় কাটাচ্ছি তাহলে বলব আপনি কিভাবে সময়কে কাটবেন সময় আপনার জীবনের প্রতিটি মুহূর্তকে কেটে দিচ্ছে কেউ জিজ্ঞেস করে 

আজকালকার সবথেকে বড় রোগ কি আমি বলি যে লোকে কি বলবে লোকে কি বলবে এটা আজকের সবথেকে বড় অসুখ কারণ আজ লোকে কি বলবে এটা ভেবে অনেকে কোন কাজই করেনা না হাসে না কান্না করে আর যদি কিছু করে ও তাহলে কেবল এটা ভেবেই করে যে লোকে কি বলবে কিন্তু আপনার এটা জানা থাকা দরকার পৃথিবী কিছু না কিছু তো সবসময় বলবে আপনি নিচের দিকে তাকিয়ে চলুন লোক বলবে আপনি কাউকে দেখেন না উপরের দিকে তাকিয়ে চলুন লোকে বলবে আপনার অহংকার হয়ে গেছে চারিদিকে তাকিয়ে থাকলে লোকে বলবে আপনার চোখে কন্ট্রোল করতে পারেন না চোখ বন্ধ করে বসলে লোকে বলবে আপনি বড় সাধু হয়ে গেছেন আর যদি চোখকেই নষ্ট করে ফেলেন তাহলে ও লোকে বলবে কিছু তো খারাপ কাজ করেছে এবার শাস্তি ভোগ করতেই হবে তাই পৃথিবী কি বলছে সেটা চিন্তা করবেন না সেটাই করুন যেটা আপনার সঠিক মনে হবে যদি আপনি সফল মানুষ হতে চান 

তাহলে আমার একটা কথাকে সবসময় মনে রাখুন সফলতা জন্য জীবন দিয়ে চেষ্টা করুন কিন্তু সফলতা নেশাকে কখনোই নিজের ওপরে চড়তে দেবেন না কারণ যদি আপনার সফলতা নেশা একবার প্রেমে চলে যায় তাহলে আপনার ব্রেইন তখন আকাশে উড়বে আর যখন সেখান থেকে আপনি পড়ে যাবেন তখন আপনারা কোন অস্তিত্ব থাকবে না তাই সবসময় মনে রাখবেন কখনোই নিজেকে এতটা উপরে নিয়ে যাবেন না যে লোক আপনার সাথে বুঝতে না পারে একটি মাস যতক্ষণ থাকে ততক্ষণ সে খুশিতে থাকে একদিন সে নদী থেকে বেরিয়ে আসে তখন সে কষ্ট পায় আর একটি মহৎ মাকে জিজ্ঞেস করে আমার কষ্ট কেন হচ্ছে তখন মহাটমা বলে তুমি জল থেকে দূরে চলে এসেছ তাই তোমার কষ্ট হচ্ছে জলে ফিরে যাও শান্তি পেয়ে যাবে একইভাবে আজ মানুষ তার আপনজন পরিবার থেকে দূরে চলে গেছে 


ভেজাবে একইভাবে আজ মানুষ তার আপনজন পরিবারের তাই এরা এত কষ্ট পাচ্ছে মনের শান্তি হলো জান্নাত জান্নাত জাহান্নাম কেবল মৃত্যুর পরে পাওয়া যাবে এটা সঠিক নয় বেঁচে থেকেও সেটাকে উপভোগ করা যায় সুখশান্তি কে কোন মন্দির মসজিদে না খুঁজে নিজের বাড়িতে কজন কারণ জাহান্নামের রাস্তা আপনার বাড়ির ভেতর দিয়ে গেলে জান্নাতে রাস্তাটাও ওখান দিয়ে গেছে একটি সিঁড়ি কে যেমন উপরে উঠতে নিচে নামতে কাজে লাগে তাই যে সিঁড়ি দিয়ে জাহান্নামে নামা যায় সেই সিঁড়ি দিয়ে আপনি জান্নাতে উঠতে পারবেন যখন আপনি আপনার বাবা-মায়ের সাথে থাকবেন তখন আপনি খোদার কাছে শুকরিয়া আদায় করুন কারণ কিছু অসাধু লোক এই মুহূর্তটা জন্যই করে 18 বছর বয়সে মনে হতো আপনা টাইম আয়েগা ত্রিশ বছর বয়স হয়ে গেছে তাও মনে হয় আপনা টাইম আয়েগা 40 বছর বয়সের একটি আশা ছিল কি আপনার টাইম আয়েগা পঞ্চাশ পার হয়ে গেছে সন্তানেরা বড় হয়ে 

গেছে কিন্তু আপনার টাইম তো আসেনি তারপর হঠাতই একদিন বুকে ব্যথা হয় আর ডক্টর সেই কথাটা বলে যে আপকা টাইম আগেয়া সবাইকে দেখে নিন তাই আপনা টাইম আয়েগা এটা ভেবে ভালো সময়ের অপেক্ষা করা বন্ধ করুন প্রতিটি মুহূর্তে প্রান খুলে হাসুন সামান্য একটু খাবার পেট পর্যন্ত পৌঁছানোর জন্য খোদা কত সুন্দর ব্যবস্থা করেছে যদি সেটা গরম হয় তাহলে সেটা হাত বলে দেয় যদি সেটা শক্ত হয় সেটা তো বলে দেয় যদি সেটা শক্ত হয় সেটা তো বলে দেয় যদি সেটাকে তোফাজ্জল হয় সেটা জীবনে দেয় যদি সেটা পাখি বা খারাপ হয় তাহলে সেটা না বলে দেয় কেবল সেটা পরিশ্রমের নাকি বেইমানের সে তার বিচার আপনাকে করতে হবে মৃত মাছগুলো স্রোতের সাথে বয়ে চলে কিন্তু যে মাছগুলো স্রোতের বিপরীতে চলতে পারে তাই যদি আপনি ও বেঁচে আছেন তাহলে ভুল এর মোকাবেলা করুন সেই ফসল যা মানুষকে একদিন না একদিন করতেই হবে তাই সবসময় ভাল বীজ লাগান যাতে

 আপনি ভালো ফসল কাটতে পারেন কাউকে ধোকা দিয়ে খুশি হবেন না কারণ উপরবালা যখন শাস্তি দেয় সেটা মুখে নয় মনে গিয়ে লাগে রবিবার সোমবার মঙ্গলবার এ কোন না কোন ভগবানকে আমরা পূজা করি কিন্তু একটিবার এমন আছে সেটাকে যদি আমরা মানে আমাদের জীবনটাই বদলে যাবে আরও একটি কেবলে পরিবার এই পরিবারে আমরা সবকিছু পায় যদি পরিবার আপনার সাথে থাকে তাহলে প্রতিটা 12 আপনার সাথে থাকবে আমাদের রোজগার করা সম্পত্তি যে কেউ করতে পারে কিন্তু আমাদের কর্ম কে কেউ কখনো ভাগ করতে পারবে না কারণ আমাদের দ্বারা করা কর্মের ফল আমরা পাব আমাদের জীবনের এই বইতে সবথেকে ভালো চ্যাপ্টার হল আমাদের ছোটবেলা নিজের বাবা-মায়ের খেয়াল রাখা মানুষটা পৃথিবীর সবথেকে বড় বাসা হয় টাকা দিয়ে পাওয়া খুশি অল্প কিছু সময়ের জন্য থাকে কিন্তু আপনজনের কাছ থেকে পাওয়া খুশি 

সারা জীবন থাকে সফল হবার জন্য আপনাকে একাই এগিয়ে যেতে হবে লোক আপনার পিছনে কখন আসবে যখন আপনি জিততে শুরু করবেন চারদিন সবার থেকে দূরে গিয়ে দেখুন লোক আপনার নাম পর্যন্ত ভুলে যাবে মানুষ সারা জীবন এই ঢোকাতেই থাকে যে সে সবার কাছে প্রিয় কিন্তু বাস্তবতা হলো আপনার থাকা না থাকাতে কারোর কিছু যায় আসে না সম্পদ হলো লবণের মত যার প্রয়োজন তো আছে কিন্তু প্রয়োজনের থেকে বেশি হয়ে গেলে এটা জীবনের স্বাদ টাকে নষ্ট করে দেয় সততার সাথে যারা কাজ করে তাদের সক হয়তো পূর্ণ হয়না কিন্তু ঘুম শান্তিতে পূর্ণ হয় আর যারা বেইমানি টাকা রোজগার করেন তাদের পূর্ণ হলেও শান্তিতে ঘুমাতে পারেনা সবশেষে বলব মানুষ 6 টি কারণে ধ্বংস হয়ে যাবে ক্লান্তি অলসতা ওকে ফেলে রাখার অভ্যেস তাই 6t জিনিসকে সবসময় নিজের কন্ট্রোলে রাখুন 


Reactions

Post a Comment

0 Comments